May 20, 2024, 8:24 am

সংবাদ শিরোনাম
শাহপরাণ (রহঃ) থানা পুলিশের অভিযানে ১৯,৬০০ কেজি ভারতীয় চিনিসহ ০৩ জন গ্রেফতার উখিয়ায় রোহিঙ্গা শিবিরে অভিযানে ৪ আরসা সদস্য অস্ত্রসহ গ্রেফতার রাজধানীর ডেমরা এলাকা হতে আনুমানিক ছয় কোটি টাকা মূল্যমানের ৮৬০০ লিটার বিদেশী মদসহ ০৩ জন কুখ্যাত মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১০ উলিপু‌রে পাঁচ কেজি গাঁজাসহ মাদক ব্যবসায়ী আটক কাউনিয়ায় (ব্লাস্ট) এর উদ্দোগে ধর্মীয় সম্প্রীতির উপরে আলোচনা সভা কুড়িগ্রামে ১ টাকায় ১০ টি পরিবেশ বান্ধব পাখা বিক্রি করছে ফুল জৈন্তাপুরে গভীর রাতে পুলিশের অভিযানে ৬১৫ বোতল মদ ৮ কেজী গাঁজা উদ্ধার রাজধানী ঢাকার যাত্রাবাড়ী এলাকা হতে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ০৫ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১০ ক্ষেতলালে কলেজ প্রতিষ্ঠাতার মৃত্যু বার্ষিকীতে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীতে সার্কেল হিসেবে সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ মাসুদ রানার যোগদান

কেমন আছে চা শ্রমিকেরা ?

কেমন আছে চা শ্রমিকেরা ?

মোঃ আব্দুস সামাদ আজাদ
সকালে ঘুম থেকে উঠে এক কাপ বেড টি দিয়ে শুরু হয় আজকের আধুনিক সমাজের দিন কিন্তু এই চা এর পেছনে যাদের অবদান কেমন আছে তারা? ৷ কিন্তু কেউ খোজ রাখেনা  এই চা শ্রমিকদের৷ দাস প্রথা রোহিত হয়েছে বহু আগেই কিন্তু মধ্যযুগীয়  ভূমি দাসের মত চা-মালিকের বাগানের সাথে বাধা আছে এই চা শ্রমিকদের নিয়তি যুগের পর যুগ ৷নিজ দেশে প্রবাসী হয়ে রয়েছে চা শ্রমিকেরা ৷যুগের পর যুগ কাটাচ্ছে মানবেতর জীবন৷২৬ ইঞ্চির বেশি  বাড়তে না দেওয়া চা গাছের মত চা শ্রমিকদের জীবন  আবদ্ধ আছে মালিকের দেওয়া ২২২ ফুট কুড়ে ঘরের মধ্যে৷ চা শিল্প বাংলাদেশের অন্যতম বৃহৎ শিল্প চা শিল্প ৷ জাতীয় অর্থনীতিতে রয়েছে এর গুরুত্বপুর্ন অবদান৷দেশ বিদেশ রয়েছে এ চায়ের ব্যাপক জনপ্রিয়তা এবং চাহিদা৷
অথচ মৌলভীবাজার সহ দেশের১৬৫ টি চা শ্রমিকেরা কাটাচ্ছে মানবেতর জীবন৷ব্রিটিশ আমল থেকে মৌলভীবাজারের ৯২ টি চা বাগানে বংশ পরম্পরায় জীবন কাটাচ্ছে কয়েক হাজার চা শ্রমিক৷মাথার ঘাম পায়ে ফেলে এ শিল্পের উন্নয়নে কাজ করলেও জীবন যাত্রার মানের কোন উন্নতি হয়নি এ সব অবহেলিত শ্রমিকদের৷কথা হয় নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একএকাধিক চা শ্রমিকের সাথে জানা যায় তাদের করুন জীবন যাত্রার কাহিনী৷দৈনিক ৮৫ টাকা মজুরী আর সপ্তাহে ৩কেজি আটার রেশনে চলে চা শ্রমিকদের জীবন৷
জীবনের তাগিদে দীর্ঘ দিন যাবৎ  মজুরী বৃদ্ধি ,ভুমি অধিকার ,বাসস্থান ও চিকিৎসা ব্যবস্থার উন্নয়নের দাবী করে আসছে তারা কিন্তু বাস্তবায়নের অভাবে অতি কষ্টে জীবন যাপন করছে তারা ৷ সরকারী ভাবে তাদের আবাসস্থল নিজ নিজ নামে করে দেবার কথা থাকলেও বাস্তবায়ন না হওয়ায় চা শ্রমিকেরা রয়েছে ভিটে হীন এবং বাগান মালিকের দয়ায়৷
  চিকিৎসা সেবায় ও রয়েছে তারা অনেক     পিছিয়ে ৷চা বাগান গুলিতে যে কয়েকটি ছোট ছোট হাসপাতাল রয়েছে সেখানেও রয়েছে ভাল ডাক্তার এবং প্রয়োজনীয় ঔষধের অভাব৷শিক্ষা ক্ষেত্রেও রয়েছে এরা বহু পিছিয়ে ৷ দু এক জনের সন্তান লেখাপড়া করলেও পাচ্ছেনা চাকুরী৷
৭১ এ মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশ গ্রহন করে দেশ স্বাধীনে অংশ গ্রহন করলেও অনেকে পায়নি তার যোগ্য সন্মান৷বর্তমান সরকারের মাননীয় প্রধান মন্ত্রীর কাছে তাদের দাবী তাঁর হস্তক্ষেপে যেন তারা নিজের নামে বাসস্থান টা  পায়৷
সকালে চিনি ছাড়া এক মগ চা এবং দুমুঠো চাল ভাজা খেয়ে শুরু হয় তাদের দিন৷ সারাদিনে হাড় ভাঙা খাটুনিতে কমপক্ষে ২৩ কেজি চা পাতা অথবা ২৫০ টি গাছ কাটা অথবা এক একর কীটনাশক ছিটালে তবেই ধরা হয় হাজিরা৷ দুপুরে একটু চা পাতার চাটনী অথবা মুড়ি চানাচুর জোটে৷
জানা যায় ,চা শ্রমিকদের ২০ দফা দাবী লিখিত আকারে মালিক পক্ষের কাছে জমা দিলে কয়েক দফা দ্বিপাক্ষিক আলোচনা হলেও মালিক পক্ষের সময়ক্ষেপনের কারনে কোন সুফল পাওয়া যায়নিযায়নি৷বিভিন্ন সময়ে সরকারী ও এনজিও মাধ্যমে সহযোগীতা পাওয়া গেলেগেলেও তা খুবই সামান্য৷
লাদেশের চা বিশ্বের ২৫ টি দেশে রপ্তানী হয়৷ এই বিপুল পরিমান বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনে যারা সরাসরি জরিত তারা যেন একটু ভাল ভাবে বাঁচতে পারে এটাই সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নিকট তাদের একমাত্র চাওয়া৷
ছবি : চাপাতা তোলার দৃশ্য
Share Button

     এ জাতীয় আরো খবর