February 29, 2024, 8:25 pm

সংবাদ শিরোনাম
উখিয়ায় চাঞ্চল্যকর হত্যাকান্ডের আসামী ১০ ঘন্টার মধ্যে গ্রেফতার কক্সবাজারে আগুনে ২১ দোকান পুড়ে ছাই ইসলামপুরে বিভিন্ন জটিল রোগে আক্রান্তদের মাঝে ধর্মমন্ত্রী চেক বিতরণ কুড়িগ্রামে ১৫ নারী কৃষককে দেড় লক্ষ টাকা বিতরণ রংপুরে গঙ্গাচড়ায় পাটচাষিদের প্রশিক্ষণ প্রদান রংপুরে মৌবন হোটেল এন্ড রেস্টুরেন্টে অসন্তোষজনক পরিবেশের কারণে জরিমানা আদায় র‍্যাব-৫, রাজশাহীর অভিযানে বাঘায় ০১ টি বিদেশী পিস্তল গুলি ও ম্যাকজিন উদ্ধার’ ০১ অস্ত্র ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার আন্তর্জাতিক সংস্থার ২৪ জন মিশন প্রধানসহ ৩৪ জন কূটনীতিক কক্সবাজারে সুন্দরগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে বছর পেরিয়ে সিজার বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ার জন্য সোনার মানুষ দরকার-ধর্মমন্ত্রী

মনোনয়ন দাখিলকে কেন্দ্র করে স্বতন্ত্র প্রার্থী মাহবুব অনুসারী দুই নেতাকে কুপিয়ে জখম

পটুয়াখালী  প্রতিনিধি: পটুয়াখালীর কলাপাড়া পৌর শহরে কতিপয় সন্ত্রাসীরা কলাপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক এস এম মনিরুল ইসলাম (৫০) এবং উপজেলা যুবলীগের সাবেক স্বাস্থ্য ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক অসীম তালুকদারকে (৫২) কুপিয়ে জখম করেছে।বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে কলাপাড়া পৌর শহরের গোডাউন ঘাট এলাকায় এ ঘটেছে।
আহত এ দুই নেতা আওয়াসীলীগের মনোনয়ন বঞ্চিত সাবেক পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী ও কলাপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. মাহবুবুর রহমানের অনুসারী বলে জানা গেছে। মাহবুবুর রহমান তালুকদার স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে পটুয়াখালী-৪ (কলাপাড়া-রাঙ্গাবালী) সংসদীয় আসনে আজ মনোনয়ন পত্র দাখিল করেছে। এ সহিংস ঘটনার জন্য মাহবুবুর রহমান তালুকদার বর্তমান সংসদ সদস্য অধ্যক্ষ মো. মহিববুর রহমানকে দায়ী করেছেন। মাহবুবুর রহমান অভিযোগ করেন, তাঁর মনোনয়ন পত্র দাখিল উপলক্ষে পূর্ব নির্ধারিত মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠানে আসার পথে বিভিন্ন স্থানে এমপি মহিববুর রহমানের অনুসারী নেতাকর্মীরা তার লোকজনদের বাঁধা দিয়েছে। তিনি দাবী করেন সন্ত্রাসীদের হামলায় তাঁর আরও ১৫ জন নেতা-কর্মী বিভিন্ন স্থানে আহত হয়েছে।
আহত অসীম তালুকদার বলেন, আমি ও সহকর্মী মনিরুল ইসলাম উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. মহাবুবুর রহমানের মনোনয়ন পত্র দাখিল উপলক্ষে পূর্ব নির্ধারিত মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠানে যাচ্ছিলাম। উপজেলার বালিয়াতলী স্টেশন থেকে মোটরসাইকেলে করে এসে শহরের গোডাউন ঘাট এলাকায় নামলে ছাত্রলীগের ২০-২৫ জন সন্ত্রাসী রামদা, লাঠিসোটা নিয়ে অতর্কিতে আমাদের ওপর হামলা চালায়। আমরা দৌড়ে সরে যাওয়ার চেষ্টা করলে পড়ে যাই। এ সময় দুর্বৃত্তরা হাতে থাকা রামদা দিয়ে এলোপাতাড়ি কোপাতে থাকে। হামলায় আমরা দু’জনই মারাত্মকভাবে আহত হয়েছি। এক পর্যায়ে দুর্বৃত্তরা চলে গেলে স্থানীয়রা আমাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করাহয়েছে। আহত এ দুইজনকে দেখতে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়েছিলেন কলাপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারী রিটার্ণিং কর্মকর্তা মো. জাহাঙ্গীর হোসেন এবং কলাপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলী আহম্মেদ।
এ বিষয়ে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য অধ্যক্ষ মো. মহিববুর রহমান এমন অভিযোগ প্রসঙ্গে বলেন, ‘আওয়ামী লীগ আমাকে মনোনয়ন দিয়েছে, আমি আওয়ামী লীগের কাজ করি। স্বতন্ত্র প্রার্থী নিয়ে তার কোন মাথা ব্যাথা নেই। তিনি আরো বলেন, আমার কোন লোক হামলা ও মারধরের সাথে জড়িত নেই। তার বিরুদ্ধে সকল অভিযোগ তিনি অস্বীকার করেছেন।
Facebook Comments Box
Share Button

     এ জাতীয় আরো খবর