June 21, 2024, 12:33 am

সংবাদ শিরোনাম
সিসিটিভির আওতায় উলিপুরঃ সম্মানিত নাগরিকদের নিরাপত্তায় পুলিশের এই প্রচেষ্টা সরিষাবাড়ীতে ৪ হাজার ব্যক্তির মাঝে এমপির চাল বিতরণ চিলমারীতে পৈ‌ত্রিক সম্প‌তি নি‌য়ে বি‌রো‌ধের জের ধ‌রে প্রায় ১৪ বছরের পুরোনো কবর ভেঙে ফেলার অভিযোগ গাজীপুর কালিয়াকৈর চান্দ্রায় ঈদ যাত্রার যাত্রীদের দুর্ভোগ কুয়াকাটা সৈকতে ভেসে এসেছে বোতলনোজ প্রজাতির মৃত ডলফিন উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে আরসার গান কমান্ডার গ্রেফতার ফরিদপুরের নগরকান্দার চাঞ্চল্যকর “ক্লুলেস ডাকাতি” ঘটনার মূলহোতা দুর্ধর্ষ ডাকাত সর্দার রবিজুল শেখ’কে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১০ রংপুরের পীরগঞ্জে ইয়াবা, জুয়ারী,ও ওয়ারেন্টের আসামী সহ ৮জনকে আটক করে পীরগঞ্জ থানা পুলিশ ভূমি সেবা সপ্তাহ উপলক্ষে জনসচেতনতা মূলক আলোচনা সভা জৈন্তাপুরে চিকনাগুল বাজারে অবৈধ পশুর হাট, সরকার হারাচ্ছে কোটি টাকার রাজস্ব

চূড়ান্ত নাগরিক তালিকায় সন্তুষ্ট নয় বিজেপি: আসামের অর্থমন্ত্রী

চূড়ান্ত নাগরিক তালিকায় সন্তুষ্ট নয় বিজেপি: আসামের অর্থমন্ত্রী

ডিটেকটিভ আন্তর্জাতিক ডেস্ক

আসামের চূড়ান্ত নাগরিক তালিকা প্রকাশের পর রাজ্যটির অর্থমন্ত্রী ও বিজেপি নেতা হিমন্ত বিশ্ব শর্মা বলেছেন, এনআরসি নিয়ে বিজেপি সন্তুষ্ট নয়। তিনি দাবি করেছেন, আরও বেশি অবৈধ অভিবাসীর তালিকা থেকে বাদ পড়ার কথা। রাজ্য থেকে সব বিদেশিদের তাড়িয়ে দিতে তাদের দল কাজ করে যাবে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে টেলিফোনে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এসব কথা জানিয়েছেন তিনি।হিমন্ত শর্মা জানান, সীমান্তবর্তী জেলাগুলোর নাগরিক তালিকায় পুনরায় যাচাইয়ের বিজেপি ও রাজ্য সরকার সুপ্রিম কোর্টে যাবে।বিজেপির আনুষ্ঠানিক প্রতিক্রিয়া পরে জানা যাবে উল্লেখ করে শর্মা জানিয়েছেন, আদিবাসীদের কাছ থেকে তিনি জানতে পেরেছেন অনেকেই এই প্রক্রিয়ার ফলাফলে অসন্তুষ্ট।আসামের অর্থমন্ত্রী বলেন, আসামের জনগণের প্রত্যাশা পূরণ করতে পারেনি এনআরসি। কারণ পুরো প্রক্রিয়ায় মাত্র ১৯ লাখ মানুষ বাদ পড়েছে। যাদের মধ্যে ৩ লাখ ৮০ হাজার আপিল করার প্রয়োজন বোধ করেনি এবং মারা গেছে। ফলে সত্যিকার অর্থে বাদ পড়েছে ১৫ লাখ। এদের মধ্যে ৫-৬ লাখ মানুষ ১৯৭১ সালে বাংলাদেশ থেকে আসামে এসেছে।অর্থমন্ত্রী আরও বলেন, এনআরসি ১৯৭১ সালের শরণার্থী সনদপত্র আমলে নেয়নি। কিন্তু ফরেনার্স ট্রাইব্যুনালে আপিলে তা আমলে নেওয়া হবে। ফলে তালিকা থেকে বাদ পড়াদের সংখ্যা দাঁড়াবে ১১ লাখ। এদের মধ্যে যাদের বাবা-মা তালিকায় স্থান পেয়েছেন তারাও অন্তর্ভুক্ত হবে। পুরো প্রক্রিয়া যখন শেষ হবে তখন বাদ পড়াদের সংখ্যা ৬-৭ লাখে দাঁড়াবে। যা খুব কম।বিজেপি নেতা জানান, সরকার এর আগে আসামের ৪০ লাখ মানুষকে বিদেশি ঘোষণা করেছিল। যা পার্লামেন্টে প্রশ্নোত্তরে বলা হয়েছিল। তিনি বলেন, কিন্তু আসামের লোকেরা খুশি নয় কারণ প্রত্যাশার চেয়ে বাদ পড়াদের সংখ্যা অনেক কম। বাদ পড়াদের সংখ্যা আরও বেশি হওয়া উচিত ছিল।হিমন্ত শর্মা জানান, বিজেপি ও রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে সীমান্তবর্তী জেলা, যেগুলোতে মুসলিম অভিবাসীদের সংখ্যা বেশি সেগুলোতে তালিকা পুনরায় যাচাইয়ের জন্য সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করবেন।এর আগে জুলাই মাসে কেন্দ্র ও আসাম সরকার সুপ্রিম কোর্টে খসড়া এনআরসির ২০ শতাংশ নাম পুনরায় যাচাইয়ের জন্য আবেদন করেছিল। কিন্তু সর্বোচ্চ আদালত আগস্টের শুরুতে এই আবেদন খারিজ করে দেয়।শর্মা বলেন, আমাদের জন্য এই প্রক্রিয়া শেষ হয়ে যায়নি। আমরা আমাদের লড়াই অব্যাহত রাখব।শনিবার স্থানীয় সময় সকাল দশটায় আসামের চূড়ান্ত নাগরিক তালিকা (এনআরসি) প্রকাশ করা হয়েছে। তালিকা থেকে বাদ পড়েছেন রাজ্যের প্রায় ১৯ লাখ ৬ হাজার ৬৫৭ জন মানুষ। এক বিবৃতিতে এনআরসি কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, চূড়ান্ত তালিকায় মোট আবেদনকারী ৩ কোটি ৩০ লাখ ১৭ হাজার ৬৬১ জনের মধ্যে নাগরিক হিসেবে স্থান পেয়েছেন ৩ কোটি ১১ লাখ ২১ হাজার ৪ জন। তালিকায় স্থান না পাওয়া ব্যক্তিরা ফরেনার্স ট্রাইব্যুনালে আপিল করার সুযোগ পাবেন।

Share Button

     এ জাতীয় আরো খবর