June 16, 2024, 6:10 pm

সংবাদ শিরোনাম
সিসিটিভির আওতায় উলিপুরঃ সম্মানিত নাগরিকদের নিরাপত্তায় পুলিশের এই প্রচেষ্টা সরিষাবাড়ীতে ৪ হাজার ব্যক্তির মাঝে এমপির চাল বিতরণ চিলমারীতে পৈ‌ত্রিক সম্প‌তি নি‌য়ে বি‌রো‌ধের জের ধ‌রে প্রায় ১৪ বছরের পুরোনো কবর ভেঙে ফেলার অভিযোগ গাজীপুর কালিয়াকৈর চান্দ্রায় ঈদ যাত্রার যাত্রীদের দুর্ভোগ কুয়াকাটা সৈকতে ভেসে এসেছে বোতলনোজ প্রজাতির মৃত ডলফিন উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে আরসার গান কমান্ডার গ্রেফতার ফরিদপুরের নগরকান্দার চাঞ্চল্যকর “ক্লুলেস ডাকাতি” ঘটনার মূলহোতা দুর্ধর্ষ ডাকাত সর্দার রবিজুল শেখ’কে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১০ রংপুরের পীরগঞ্জে ইয়াবা, জুয়ারী,ও ওয়ারেন্টের আসামী সহ ৮জনকে আটক করে পীরগঞ্জ থানা পুলিশ ভূমি সেবা সপ্তাহ উপলক্ষে জনসচেতনতা মূলক আলোচনা সভা জৈন্তাপুরে চিকনাগুল বাজারে অবৈধ পশুর হাট, সরকার হারাচ্ছে কোটি টাকার রাজস্ব

বোয়ালমারীতে চেক জালিয়াতির মামলা দিয়ে প্রবাসীর স্ত্রীকে হয়রানির অভিযোগ

কামরুল সিকদার, বোয়ালমারী (ফরিদপুর) থেকে ঃ

ফরিদপুরের বোয়ালমারী উপজেলার পরমেশ্বরদী ইউনিয়নের ধুলজোড়া গ্রামের মমতাজ বেগম (৫০) নামে এক মহিলার নামে মিথ্যা চেক জালিয়াতির মামলা দিয়ে হয়রানি করছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। মিথ্যা চেক জালিয়াতির মামলাটি করেছেন পার্শ্ববর্তী জয়পাশা গ্রামের সৈয়দ আহম্মদ আলী (৯০)।অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, মমতাজ বেগমের স্বামী মো. চুন্নু মোল্যা ওরফে শামচুল হক আইনউদ্দিন ও মামলার বাদী সৈয়দ আহম্মদ আলীর ছেলে সৈয়দ আমিনুর ইসলাম কুয়েতে চাকরি করতো। বিদেশে চাকরি কালীন সময়ে সৈয়দ আমিনুর ইসলাম মারাত্বক আহত হয়ে ২০১৫ সালে দেশে ফিরে আসে। দেশে আসার ১ মাস ১১ দিন পর তিনি মারা যান। এ ঘটনায় কুয়েতি কোম্পানী আমিনুর ইসলামের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দিতে চায়। সে মোতাবেক কুয়েতে অবস্থানরত পার্শ্ববর্তী গ্রামের চুন্নু মোল্যার কাছে প্রথম কিস্তির ১ লাখ ৬০ হাজার টাকা দিলে তার স্ত্রী মমতাজ বেগমের মাধ্যমে নিহতের বাবা সৈয়দ আহম্মদ আলীর নিকট গত রমজান মাসে ওই টাকা পৌছে দেয়া হয়। পরবর্তী কিস্তিতে আরও ২ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ বাবদ দিলে গত ৬ মে ২০১৯ ইং তারিখে সৈয়দ আহম্মদ আলী মমতাজ বেগমের বাড়িতে টাকা নিতে যায়। নগদ টাকা না থাকায় মমতাজ বেগম সরল বিশ্বাসে টাকার পরিমাণ লিখতে না জানায় শুধুমাত্র চেকের পাতায় সহি দিয়ে সৈয়দ আহম্মদ আলীকে ২ লাখ টাকা লিখে নিতে বলেন। কিন্তু সৈয়দ আহম্মদ আলী কৌশলে ২লাখ টাকার স্থলে ২১ লাখ টাকা লিখে নেয়। পরবর্তীতে গত ৭ মে ওই টাকা তোলার জন্য সোনালী ব্যাংক ময়েনদিয়া শাখায় গেলে অ্যাকাউন্টে পর্যাপ্ত টাকা না থাকায় চেকটি ডিজঅনার করা হয়। এরই সূত্র ধরে সৈয়দ আহম্মদ আলী ফরিদপুর বিজ্ঞ অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ৭নং আমলী আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন।এ ব্যাপারে সোনালী ব্যাংক ময়েনদিয়া শাখার ম্যানেজার প্রতাপ কুমার দত্ত বলেন, মমতাজ বেগমের অ্যাকাউন্টে চেকের সমপরিমাণ টাকা না থাকায় চেকটি ডিজঅনার করা হয়।এ বিষয়ে ভুক্তভোগী মমতাজ বেগম বলেন, আমি পড়ালেখা জানি না। স্বামী বিদেশ থাকায় নিজ নামে সোনালী ব্যাংকে অ্যাকাউন্ট খুলি। লেখাপড়া না জানায় শুধু সহি করে ২ লাখ টাকা লিখে নিতে বলে আহম্মদ আলীকে চেকটি দেই। কিন্তু সে প্রতারণার মাধ্যমে ২ লাখের স্থলে ২১ লাখ লিখে চেকটি ব্যাংকে জমা দেয়।সৈয়দ আহম্মদ আলীর মোবাইল ফোনে (০১৭২০-১১১৯৬৪) একাধিকবার কল করা হলেও ফোনটি বন্ধ থাকায় তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

প্রাইভেট ডিটেকটিভ/২৮ জুলাই ২০১৯/ইকবাল

Share Button

     এ জাতীয় আরো খবর