September 23, 2021, 1:47 am

শিরোনাম :
বেনাপোল স্হল পথে পাসপোট যাত্রীরা সপ্তাহের ৭দিনই যাতায়াত করতে পারবে। বিদেশি পিস্তল গুলি মাদক সহ যুবক আটক ‘‘ভালবাসার এক অক্ষয় কীর্তি” শার্শায় বিদ্যুৎস্পৃষ্ট এক দোকানদারের মৃত্যু জৈন্তাপুরে স্কুল ছাত্রী ধর্ষিত, ধর্ষক আটক শুধু দামী খাবারই পুষ্টিকর খাবার নয়,জৈন্তাপুরে সূচনার মাসিক সভায় বক্তারা বেনাপোলে সিএন্ডএফ অফিসের তালা ভেঙে মালামাল চুরি যশোরে সোনার বার সহ আটক ব্যক্তির ১৪ বছর দণ্ড নোয়াখালীর রিক্সা চালক হত্যা মামলার আসামী নরুল আমিন বেনাপোলে গ্রেফতার নিজস্ব কর্মসূচির পাশাপাশি শব্দদূষণ নিয়ন্ত্রণে সামাজিক সংগঠনগুলোকে এগিয়ে আসার আহ্বান লালপুরে আখ পরিবহনের অপরাধে ১০ হাজার টাকা জরিমানা পরিকল্পিত ও বাসযোগ্য গড়ে তোলাই বর্তমান সরকারে অন্যতম লক্ষ্য, শ্রীমঙ্গলে প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ভারত থেকে চিকিৎসা নিয়ে দেশে ফেরার সময় বেনাপোল ইমিগ্রেশনে পাসপোট যাত্রীর মৃত্যু ইসলামপুরে গোয়ালের চর ওয়ার্ড যুবলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত নাটোরে র‍্যাবের অভিযানে ৭ মাদকসেবী আটক  যশোরের দুই যুবক কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে পানিতে ডুবে মৃত্যু সৌদি প্রবাসী বাংলাদেশী যুবকের ৬৭ দিন অপেক্ষার পর মরদেহ পেল স্বজনরা মৌলভীবাজারে শ্রীহট্ট সাহিত্য সংসদের কমিটি গঠন ১৯ বিজিবি ক্যাম্পের নামে জায়গা দখল জেলা প্রশাসক বরাবরে অভিযোগ লালপুরে তোহিদুল ইসলাম বাঘার গনসংযোগ ও উঠান বৈঠক

দ্বৈব নির্দেশে সুন্দরীমালাকে কিনলেন লালমনিরহাটের দুলাল

Spread the love
মৃনাল কান্তি রায় সরকার, লালমনিরহাটঃঃ
ব্যক্তিগত উদ্যোগে হাতি কিনে পালন করার ঘটনা বিরল হলেও সেটি করেছেন লালমনিরহাট সদর উপজেলার পঞ্চগ্রাম ইউনিয়নের দেউপাড়া নিবাসী দুলাল চন্দ্র রায়।
বিভিন্ন ঘটনা ও এলাকাবাসীসূত্রে জানা যায়, দুলাল চন্দ্র রায়ের স্ত্রী তুলসী রানী খুবই ধর্মভীরু প্রকৃতির। বিয়ের পর তাদের দু’টি সন্তান জন্মানোর পর থেকেই তাঁর উপর বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন দেব-দেবী ভর করা এবং বিভিন্ন দিকনির্দেশনা দেয়া শুরু করে। সেই দিকনির্দেশনা মোতাবেক তিনি বিভিন্ন রোগী বা সেবাগ্রহীতার সমস্যার সমাধান দিতেন। অনেকে দেব-দেবী প্রদত্ত পরামর্শে তুলসী রানীর দেয়া তথ্যে রোগমুক্তি বা বিভিন্ন সমস্যার সমাধানও পেতেন। দীর্ঘদিন যাবত এভাবে চলে আসছিলো। এখন দেব-দেবীর দৈব নির্দেশনা যে তাদেরকে বিভিন্ন প্রজাতির জন্তু কিনে বাড়িতে পালন করতে হবে। এই নির্দেশনা অনুসারে ইতিমধ্যে তিনি ঘোড়া, খঁড়গোশ, রাজহাঁস প্রভৃতি কিনে বাড়িতে পালন করছেন। এরই ধারাবাহিকতায় গত ১৪ই সেপ্টেম্বর খুলনা থেকে সুন্দরীমালা নামক হাতিটি ক্রয় করে নিয়ে আসেন দুলাল চন্দ্র রায়।
উক্ত এলাকার বাসিন্দা পলাশ চন্দ্র রায় দেবসিংহ বলেন, “মোটামুটি সব ধরনের দেব-দেবী’র স্থান ওনাদের বাড়িতে রয়েছে। আর বিভিন্ন সময় বিভিন্ন এলাকা থেকে লোকজন এখানে এসে মানত ও পুঁজো করে যায়। অনেকের মনোবাসনা পূর্ণ হওয়ায় নিজ উদ্যোগে কয়েকটি  মন্দিরও বানিয়ে দিয়েছেন।”
হাতির মালিক দুলাল চন্দ্র রায় বলেন, “দীর্ঘ প্রায় ১০ বছর ধরে বিভিন্ন দেব-দেবী আমার স্ত্রীর উপর ভর করা শুরু করে। প্রথমদিকে আমি এগুলো বিশ্বাস করতাম না। কিন্তু একদিন ঘটনাচক্রে দেবীমূর্তির আবির্ভাব আমার স্ত্রীর মধ্যে দৃশ্যমান হওয়ায় আমি সেদিন থেকে বিশ্বাস করতে বাধ্য হয়েছি।”
তিনি আরও বলেন, ” ঠাকুরের নির্দেশ পালন করার জন্য আমার পৈতৃক সম্পত্তি বিক্রির ১৬ লক্ষ ৪০ হাজার টাকা দিয়ে হাতিটি কিনে এনেছি।”
সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী দুলাল চন্দ্র রায়ের বাড়িতে হাতি দেখার জন্য বিভিন্ন এলাকা থেকে আগত দর্শনার্থীদের ভীড় লেগেই আছে। সকাল থেকে রাত পর্যন্ত দর্শনার্থীরা এসে হাতি দেখছেন।
Facebook Comments Box
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ