September 16, 2021, 4:53 pm

শিরোনাম :
ভোলায় নবীকে নিয়ে অবমাননায় প্রতিবাদ সমাবেশ পটুয়াখালীতে যৌতুকের বলি গৃহবধূ- স্বামী-শশুরসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে মামলা সরিষাবাড়ীতে নদীতে গোসল করতে গিয়ে শিক্ষার্থী নিখোঁজ বেনাপোলে ৪কেজি গাঁজাসহ ১ আটক জগন্নাথপুরে গাঁজা ও ইয়াবা সহ শাহনাজ গ্রেফতার যশোরে বোমা বানাতে গিয়ে আহত ব্যক্তির মৃত্যু নাটোরে ৪ দফা দাবী বাস্তবায়নে ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং সংগ্রাম পরিষদের মানববন্ধন ভ্রাম্যমান খাদ্য বিক্রেতাদের প্রশিক্ষণ নিরাপদ ও স্বাস্থ্যসম্মত খাবার বিক্রয়ে প্রত্যয় ব্যক্ত ভ্রাম্যমান খাদ্য বিক্রেতাদের ১০৬ যাত্রী নিয়ে অদৃশ্য সেই ট্রেনের খোঁজ মেলেনি ১১০ বছরেও ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালালো উত্তর কোরিয়া বিয়ে পীড়িতে বসলেন মাহি সিলেটে এটিএম বুথ থেকে ২৪ লাখ টাকা লুট এহসান গ্রুপে যুক্ত বক্তাদের তালিকা হচ্ছে পিইসি-জেএসসি পরীক্ষা থাকছে না: শিক্ষামন্ত্রী সুন্দরগঞ্জের বন্যা সহনশীলতা বিষয়ক মতবিনিময় লালপুরে ট্রেনের ধাক্কায় পথচারীর মৃত্যু ভারতের পেট্রাপোল বন্দরে জায়গা সংকটে ব্যাহত হচ্ছে রফতানি বানিজ্য নাটোরে জেলা মহিলা আ’লাীগের কর্মীসভা অনুষ্ঠিত পীরগঞ্জে অবৈধভাবে করতোয়া নদী থেকে বালু উত্তোলন করায় হুমকির মুখে ফসলি জমি ও ঘরবাড়ি কুয়াকাটা সৈকত সংলগ্ন সমুদ্রে মাছ ধরা ট্রলার নিমজ্জিত

শার্শায় বিদ্যালয় থেকে ইটের খোয়া চুরির অভিযোগে প্রধান শিক্ষক আটক

Spread the love

ইয়ানূর রহমান :

 

যশোরের শার্শা মডেল সরকারি পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালযের প্রধান শিক্ষক শহিদুল ইসলাম’র বিরুদ্ধে বিদ্যালয় থেকে ইটের খোয়া চুরি করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। বৃহষ্পতিবার সকালে ইটের খোয়া গুলো ভ্যানে করে বাড়ীতে নিয়ে যাওয়ার সময় হাতেনাতে আটক হয়েছে।

জানা যায়, বৃহষ্পতিবার সকালে বিদ্যালয়ে রক্ষিত ১৫ বস্তা ইটের খোয়া ভাড়ায় চালিত একটি ভ্যানে করে  বাড়ীতে নিয়ে যাওয়ার সময় স্থানীয় জনতা আটক করে উপজেলা প্রশাসনকে খবর দেয়। পরে উপজেলা প্রশাসন খবর পেয়ে ভ্যান বোঝাই খোয়াসহ প্রধান শিক্ষক শহিদুল ইসলামকে আটক করে নিয়ে আসে। এক পর্যায়ে প্রধান শিক্ষক শহিদুল ইসলামকে মুচলেকা দিয়ে ছেড়ে দেয় এবং একটি তদন্ত কমিটি গঠন করে উপজেলা প্রশাসন।
এলাবাসীরা জানান, প্রধান শিক্ষক শহিদুল ইসলাম একজন দূর্ণীতিবাজ ও খারাপ প্রকৃতির লোক। সে কিছুদিন আগে এ বিদ্যালয় থেকে পুরাতন রড ও ইট চুরি করে নিয়ে যাওয়ার সময় স্থানীয় জনগন আটকিয়ে রাখে। পরে হাতে পায়ে ধরে ছাড়িয়ে যায়। এ ছাড়াও ইতি পূর্বে সে ২০১৫ সালে অত্র বিদ্যালয় থেকে সরকারী বই-খাতা চুরি করে বিক্রয়ের অভিযোগে উপজেলা প্রশাসন ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে সাজা প্রদান করে জেল হাজতে পাঠায়।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অফিস থেকে ঝাড়–দারের মোবাইল ফোন চুরি করে। নারী কেলেংকারীসহ বিদ্যালয়ের একাধিক শিক্ষার্থীকে শারিরীক ভাবে নির্যাতন করার অভিযোগ রয়েছে।

অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষক শহিদুল ইসলাম বলেন, আমি স্থানীয় সংসদ সদস্যের মাধ্যমে ইটের খোয়া গুলো ক্রয় করেছি তার সঠিক ভাউচার আছে এবং সে নিজেকে নিরাপরাধ দাবী করেন।

এ ব্যাপারে শার্শা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মীর আলিফ রেজা বলেন, খবর পেয়ে ভ্যান বোঝাই ইটের খোয়াসহ প্রধান শিক্ষক শহিদুল ইসলামকে আটক করে নিয়ে আসা হয়। সে বলে ইটের খোয়া গুলো ক্রয় করেছে তার সঠিক ভাউচার আছে। পরে মুসলেকা দিয়ে প্রধান শিক্ষককে ছেড়ে দিয়ে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

Facebook Comments Box
Share Button

      এ ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ